রামগঞ্জে দুর্বৃত্তদের ধারালো অস্ত্রে জখমকৃত ব্যবসায়ী পরিবারের ৬জনেই মৃত্যুশয্যা - pratidinkhobor24.com

Breaking

Home Top Ad

Post Top Ad

Wednesday, 2 September 2020

রামগঞ্জে দুর্বৃত্তদের ধারালো অস্ত্রে জখমকৃত ব্যবসায়ী পরিবারের ৬জনেই মৃত্যুশয্যা



রামগঞ্জ ( লক্ষ্মীপুর) প্রতিনিধি : 
 সম্পত্তি বিরোধের জেরধরে রামগঞ্জের দক্ষিন চন্ডিপুর গ্রামের জান্নাত পাটোয়ারী বাড়ির মরহুম লুৎফর রহমানের ছেলে ঢাকাস্থ  ব্যবসায়ী মাসুদ আলমসহ তার পরিবারের ৬জন সদস্য  প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রের অাঘাতে জখমপ্রাপ্ত হয়ে মৃত্যুরশয্যা ঢাকায় পঙ্গু ও নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত শনিবার সন্ধ্যায়  ব্যবসায়ী মাসুদ আলমের বসত বাড়িতে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তারেক হোসেন ও মাসুদ আলম  নামে দুই জনকে গ্রেপ্তার করেন।
সূত্রে জানান সম্পত্তি বিরোধের জেরধরে মাসুদ আলম গংদের সাথে একই বাড়ির তারেক হোসেন,মাকছুদ আলম,মানিক হোসেনের সাথে বিরোধ চলে আসছে। ওই বিরোধের জেরধরে তারেক,মাকছুদ,মানিক হোসেনের নেতৃত্বে ১৫/২০ জনের ভাড়াটে দুর্বৃত্তরা রামদা, চাকু, রড দিয়ে মাসুদ গংদের ভবনে প্রবেশ করে ৬টি কক্ষে আসবাবপত্র ভাংচুর,লুটপাঠ করেন। ওই সময়ে বাধাদিলে দুর্বৃত্তরা ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ব্যবসায়ী মাসুদ আলম (৫০), আব্দুর রহিম (৪৫), রিতা বেগম (৪০),নয়ন বেগম ( ৩৭),নুপুর বেগম ( ৩০),সাথী আক্তার (২৮) গুরুতর জখম হয়ে ঢাকা পঙ্গু ও নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে জ্ঞানহীন হয়ে মৃত্যুশয্যা রয়েছে। 
সৃষ্ট ঘটনায় মাসুদের বড় ভাই বাবুল হোসেন বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন। 
বাদী বাবুল হোসেন জানান পূর্বপরিকল্পিত প্রতিপক্ষরা আমার পরিবারের ৬জনকে কুপিয়ে জখম করেন। এ সময়ে ঘরে রক্ষিত নগদ ৫ লাখ টাকা,১৪ ভরি স্বর্ণালংকার হাতিয়ে নেন। 
প্রতিপক্ষ মাকছুদের স্ত্রী রেহানা বেগম,মানিকের মা মাজুদা বেগম জানান সম্পত্তি বিরোধের জেরধরে ঘটনা ঘটেছে। তুচ্ছ ঘটনাটি বহিরাগতদের কারণে সমস্যা হয়েছে। 
মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই হুমায়ন কবির  বলেন স্ংঘর্ষ চলমান অবস্থায় দুইজনকে আটক করেছি। অন্যদের আটকের অভিযান চলছে।

No comments:

Post a comment

Post Bottom Ad

Pages